গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার কর্তৃক সমাজকল্যাণ অসামান্য অবদানে একুশে পদকপ্রাপ্ত, বাংলাদেশ বৌদ্ধ ভিক্ষু মহাসভার ২৮তম মহামান্য সংঘনায়ক ও বাসাবো ধর্ম্মরাজিক বৌদ্ধ মহাবিহারের আজীবন মহাধ্যক্ষ ভদন্ত শুদ্ধানন্দ মহাথেরো মহোদয়ের মহাপ্রয়াণে পার্বত্য ভিক্ষু সংঘ বাংলাদেশ (পাভিসবা) শোকাভিভূত। একজন জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে অসাম্প্রদায়িক বৌদ্ধ সংঘমনীষার মহাপ্রয়াণে অপূরণীয় ক্ষতি হয়েছে বলে মনে করে পাভিসবা।

ভদন্ত শ্রদ্ধালংকার মহাথেরো, সভাপতি, কেন্দ্রিয় কার্যকরী কমিটি, পাভিসবা এর স্বাক্ষরিত এক শোকবাণী জানানো হয়। বাণীতে অভিব্যক্তি প্রকাশ করা হয়- তিনি(শুদ্ধানন্দ) ছিলেন বাংলার বৌদ্ধ সমাজে শাসন সদ্ধর্মের অন্যতম অভিভাবক। তিনি অসাম্প্রদায়িক বৌদ্ধমনীষা ছিলেন। পার্বত্য চট্টগ্রামের ঐতিহ্যবাহী ও পার্বত্য ভিক্ষু সংঘ বাংলাদেশ (পাভিসবা) সাথে ভন্তে মহোদয়ের হৃদ্যতা গভীর সম্পর্ক ছিল। ভন্তে মহোদয়ের পরম সুখ লাভে সংঘের পক্ষ থেকে পুণ্যরাশি দান করা হয়।

এছাড়াও গতকাল পার্বত্য ভিক্ষু সংঘ বাংলাদেশ (পাভিসবা) এর উপসংঘরাজ ভেন. প্রজ্ঞানন্দ মহাথেরো মহোদয়ের নেতৃত্বে অন্তিম পুষ্পাঞ্জলি দেয়া হয়। কর্মবীর ও অনাথের ধর্মপিতা ভেন. বিমল তিষ্য ভিক্ষু (মহাথেরো) মহোদয়ের পক্ষ থেকেও শোকাঞ্জলি প্রদান করা হয় ঢাকাস্থ বাসাবো ধর্মরাজিক বৌদ্ধ মহাবিহারে গিয়ে।

উল্লেখ্য, গত ২ মার্চ,২০২০ তারিখ রাজধানীর ল্যাবএইড হাসপাতালে সংঘনায়ককে মুর্মূষূ অবস্থায় ভর্তি করা হলে পরেরদিন সকালে ৮টায় ৮৮ বছর বয়সে অন্তিম শয্যায় শায়িত হন।

Please follow and like us:
error0

By pbsb

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *